ঢাকাসোমবার , ১৬ অক্টোবর ২০২৩
  • অন্যান্য
আজকের সর্বশেষ সবখবর

চৌদ্দগ্রামে পূর্ব বিরোধের জেরে বাড়ীঘরে হামলা ভাংচুর, আহত-৩

চৌদ্দগ্রাম (কুমিল্লা) প্রতিনিধি:
অক্টোবর ১৬, ২০২৩ ১২:৫১ অপরাহ্ণ । ১২৩ জন

কুমিল্লার চৌদ্দগ্রামে পূর্ব বিরোধের জেরে আব্দুল মান্নান নামে এক ব্যবসায়ীর বাড়ীতে হামলার অভিযোগ পাওয়া গেছে। হামলায় আব্দুল মান্নান সহ তার পরিবারের আরো ২ সদস্য আহত হয়েছে। এ সময় হামলাকারীরা ভাংচুর করে এবং ২ নারীকে শ্লীলতাহানীর চেষ্টা করে। ঘটনাটি ঘটেছে চৌদ্দগ্রাম পৌরসভাধিন কমলপুর গ্রামে। এ ঘটনায় আব্দুল মান্নানের স্ত্রী আকলিমা আক্তার আঁখি বাদী হয়ে থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেন।

অভিযোগ সূত্রে জানা গেছে, গত শুক্রবার বা’দ জুমআ আব্দুল মান্নান ও তার ছোট ভাই রাজন তাদের বাড়ীর সামনের রাস্তায় অবস্থানকালে পূর্ব পরিকল্পনা অনুযায়ী একই এলাকার বাচ্চু মিয়ার ছেলে ফারুক হোসেনের নেতৃত্বে তার পরিবারের লোকজন ও অজ্ঞাতনামা আরো কতিপয় যুবক তাদের উপর হামলা করে। হামলায় রাজন ও আব্দুল মান্নান গুরুতর আহত হন। এ সময় হামলাকারীরা আব্দুল মান্নানের বসতঘরের ১২টি জানালার ২৪টি থাই গ্লাস, সিসি ক্যামেরা ও মনিটর ভাংচুর করে। চিৎকার শুনে আব্দুল মান্নানের পিতা-মাতা সহ পরিবারের লোকজন এগিয়ে আসলে হামলাকারীরা তাদের উপরও হামলা চালায় এবং আব্দুল মান্নানের স্ত্রী আকলিমা আক্তার আঁখি সহ পরিবারের নারী সদস্যদের শ্লীলতাহানীর চেষ্টা করে। এ সময় আব্দুল মান্নানের পিতা হাজী আব্দুল করিম তিতন আহত হন। পরে স্থানীয়দের সহযোগিতায় আহতদের চৌদ্দগ্রাম উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যাওয়া হয়। এ ঘটনায় ভুক্তভোগি আব্দুল মান্নানের স্ত্রী বাদী হয়ে ৬ জনের নাম উল্লেখপূর্বক অজ্ঞাতনামা আরো ১০/১২ জনের নামে চৌদ্দগ্রাম থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেন।

এ বিষয়ে আকলিমা আক্তার আঁখি বলেন, শুক্রবার জুমআর নামাজের পরে আমার দেবর রাজন খাবার খেয়ে বাড়ীর সামনের রাস্তায় গেলে ফারুক হোসেন পূর্বপরিকল্পনা অনুযায়ী অজ্ঞাতনামা আরো লোকজন নিয়ে তার উপর হামলা করে। চিৎকার শুনে আমার স্বামী ও শশুর এগিয়ে গেলে তারা তাদেরকেও মারধর করে। এ সময় হামলাকারীরা আমাদের বসতঘরের জানালা, সিসি ক্যামেরা ও মনিটর ভাংচুর করে। আমি এ ঘটনায় জড়িতদের আইনের আওতায় এনে শাস্তি নিশ্চিতের জন্য প্রশাসনের নিকট বিনীত আবেদন করছি।’